শিক্ষাদান পদ্ধতি

শিক্ষাদান পদ্ধতি

  • প্রি-প্লে, প্লে, নার্সারী ও কেজি শ্রেণিতে একাধিক শিক্ষিকা দ্বারা আনন্দ বিনােদনের মাধ্যমে মাতৃস্নেহে পাঠদান।
  • অপেক্ষাকৃত দূর্বল, অমনােযােগী সরল শিক্ষার্থীদের টেক-কেয়ার লার্ণিং প্রােগ্রাম (এস.টি.সি.এল.পি) পদ্ধতি অনুসরণ করা হয়।
  • দৈনন্দিন পঠিত বিষয় শ্রেণিতেই পড়ানাের পর HW (বাড়ির কাজ) দিয়ে শ্রেণির পাঠকে আদায় করা হয়।
  • শিক্ষার্থীদের ক্লাস উপস্থিতি, আচরণ ও পারফরম্যান্সের উপর পুরস্কার প্রদান করা হয়।
  • শিক্ষার্থীদের মাধ্যমে বাের্ড এবং ডেস্ক ব্যবহার করিয়ে পঠিত বিষয়ে মূল্যায়ণ করা হয়।
  • প্রত্যেকটা ক্লাসে Lesson Plan অনুযায়ী পাঠদান।
  • শিক্ষা বর্ষের সম্পূর্ণ সিলেবাসকে তিনটি ভাগে ভাগ করে প্রথম | সাময়িক, দ্বিতীয় সাময়িক এবং বার্ষিক পরীক্ষা গ্রহণ করা হয়।
  • প্রত্যেক সাময়িক পরীক্ষার আগে একটি MT (মাসিক মূল্যায়ন পরীক্ষা) গ্রহণ করা হয়।
  • সারা সপ্তাহে পঠিত বিষয়গুলাের উপর সপ্তাহে নির্দিষ্ট দিনে CT (শ্রেণি মূল্যায়ণ পরীক্ষা) গ্রহন করা হয়।
  • ফুলটাইম স্কুলিং ব্যবস্থা, যাতে বাসায় কোন গৃহ শিক্ষকের প্রয়ােজন না হয়।
  • MT (মাসিক মূল্যায়ণ পরীক্ষা), CT (শ্রেণি মূল্যায়ণ পরীক্ষা) এর পর Solve Class নেয়া হয়।
  • MT (মাসিক মূল্যায়ণ পরীক্ষা), TT (সাময়িক পরীক্ষা) এর আগে সাজেশন দেওয়া হয়।
  • প্রতি মাসে টিচার্স মিটিং এ পাঠদান পরিকল্পনা গ্রহণ এবং তদানুযায়ী শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়।
  • সার্বক্ষণিক CCTV দ্বারা Class Activities (শ্রেণি কার্যক্রম) এবং Teacher Performance (শিক্ষক/শিক্ষিকাদের পাঠদান) এর তদারকি করা হয়।

শীর্ষ ম্যাগাজিন

আরো পড়ুন